শামীম মিয়া(স্টাফ রিপোর্টার)

টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার ১ নং মহেড়া ইউনিয়নের গোড়াকী গ্রামে জমি বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষ ৬ জনকে কুপিয়ে জখম করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার সকাল প্রায় সাড়ে ৬ টার দিকে।এ ঘটনায় আহতদের কে মির্জাপুর কুমুদিনী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহতদের পরিবার সুত্র জানায় দীর্ঘদিন যাবৎ সত্তরঞ্জন চৌধুরী গংদের সাথে কৃষ্ণ সরকার গংদের জমি নিয়ে বিরোধ চলছে। এনিয়ে কোর্টে মামলা হলে ৪৪ ধারাও জারি করা হয়। কিন্তু ৪৪ ধারা জারিকে অমাণ্য করে শুক্রবার সকালে পরিকল্পিতভাবে কৃষ্ণ সরকার ও তার পরিবার এবং ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীদের নিয়ে জমি দখল করতে গেলে বাধা দেয়ায় অতর্কিত ভাবে সত্তরঞ্জন ও তার পরিবারের উপর হামলা চালানো হয়।এতে সত্তরঞ্জন চৌধুরী, উত্তম চৌধুরী ও তার স্ত্রী অঞ্জনা চৌধুরী, বিমান চৌধুরী ও তার স্ত্রী বাসন্তী চৌধুরী, সুভাষ চৌধুরীর উপর হামলা চালিয়ে চাপাতি দিয়ে কুপানো হয় এবং দা,শাবল ইত্যাদি ধারালো অস্ত্র দিয়ে শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাত করা হয়। পরে গুরুতর আহতাবস্থায় ৬ জনকে উদ্ধার করে মির্জাপুর কুমদিনী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
কুমদিনী হাসপাতালের কর্তব্যরত মেডিকেল অফিসার ডা.জগন্নাথ ঘোষ বলেন,আহতদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় সত্তরঞ্জন, সুভাষ ও উত্তম চৌধুরীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা প্রেরণ করা হয়েছে তাদের ৩ জনই মাথায় গুরুতর আঘাতপ্রাপ্ত। আর বাকি ৩ জনকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
মির্জাপুর থানার এসআই দয়াল চন্দ্র সরকার সাংবাদিকদের বলেন ঘটনার পর অভিযোগ পেয়ে কৃষ্ণ সরকারকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন উল্লেখ করে তিনি বলেন, ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here