মির্জাপুরে সরকারি বই কেজি দরে বিক্রি করলো স্কুলের প্রধান শিক্ষক

0
41
Loading...

শামীম মিয়া(স্টাফ রিপোর্টার)

বাংলাদেশর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বছরের প্রথম দিনে সারাদেশে একযোগে যখন কোমলমিত ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে তুলে দিচ্ছে বিনামূল্যে নতুন বই।আর সেই নতুন বই ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে না দিয়ে কেজি দরে বিক্রি করে দিচ্ছেন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কাজী গোলাম সারোয়ার।
এমনি ঘটনা ঘটেছে টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলা বহরিয়া ইউনিয়নের বহরিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে।শনিবার(১৬ ফ্রেরুয়ারী) সরেজমিন পরিদর্শন করে এমন গুরুতর অন্যায়ের প্রমাণ মিলেছে ঐ বিদ্যালয়ে।বস্তাবন্দি করা অবস্থায় পাওয়া যায় প্রায় কয়েক বস্তা বই।যদিও হাতেনাতে ধরার পরও বিষয়টি অস্বীকার করছেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক কাজী গোলাম সারোয়ার। তিনি সাংবাদিকদের জানান, বইগুলো গুছিয়ে রাখা হচ্ছে গুদাম ঘরে রাখার জন্যে।কিন্তু নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই পুরাতন বই ক্রেতাদের একজন জানান, ৮ টাকা দরে ওই বইগুলো কিনেছেন তিনি। সে হিসেবে প্রধান শিক্ষক তার কাছ থেকে বুঝে নিয়েছেন ২৭৫০ টাকা। যেখানে পুরাতন বইসহ এবছরের নতুন বইও রয়েছে। যদিও নতুন কিংবা পুরাতন সব বই-ই যথাসময়ে শিক্ষা অফিস বরাবর ফেরত দেওয়ার কথা।তিনি আরও জানান, উপজেলার অধিকাংশ স্কুলই এভাবে বই বিক্রি করে থাকে। ৫ থেকে ৮ টাকা দরে এই বইগুলো কিনে থাকেন তারা। তবে এগুলো বিক্রয় করা যে অবৈধ তা জানেন না পুরাতন বই ক্রেতা স্বল্পশিক্ষিত ওই ব্যক্তি।

এ ব্যাপারে প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আলমগীর হোসেন সাংবাদিকদের জানান, বিষয়টি তার জানা নেই। তবে বিষয়টি তিনি খোঁজ নিয়ে দেখবেন বলে জানান।উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবদুল মালেক জানান, সরকারি নতুন কিংবা পুরাতন বই কোনোটাই বিক্রি করে দেয়ার কোনো সুযোগ নেই। যদি কেউ এ কাজ করে থাকে তবে তা তদন্ত করে দেখা হবে এবং দোষী প্রমাণিত হলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

(Visited 40 times, 1 visits today)